সকল সংবাদ

কনস্টেবল পদে পুলিশে চাকরি দেয়ার নামে প্রতারণা প্রতারক গ্রেপ্তার

  admin2 ৭ নভেম্বর ২০২১ , ১২:৪২:২৫ 191

দেশ সংবাদ২৪.কম//

কনস্টেবল পদে পুলিশে চাকরি দেয়ার নামে প্রতারণা। প্রতারক কাশেম কে গ্রেপ্তার করেছে ভেড়ামারা থানা পুলিশ।

কুষ্টিয়ায় পুলিশের ট্রেইনি রিক্রুট কনস্টেবল (টিআরসি) পদে চাকরি দেওয়ার নামে প্রতারণার অভিযোগে আবুল কাশেম (৩২) নামে ১ জন কে গ্রেপ্তার করেছে ভেড়ামারা থানা পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃত আবুল কাশেম দৌলতপুর উপজেলার সোনাইকুন্ডি মাদ্রাসাপাড়ার বাসিন্দা মৃত ফরিদ আলী মন্ডলের ছেলে।
রোববার বিকালে সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানান ভেভামারা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মজিবুর রহমান।
ভেড়ামারা থানা পুলিশ সূত্রে জানাগেছে, আসামী আবুল কাশেম চাকরি প্রার্থীকে কনস্টেবল পদে চাকরি পাইয়ে দিবেন। এরজন্য ১০ লাখ টাকা দাবি করে। সে চাকরি প্রার্থী ও তার পরিবারকে পুলিশ সুপারের সাথে সরাসরি সাক্ষাৎ করিয়ে দিবেন একথাও বলে। এরপর চাকরি প্রার্থী ও তার বাবাকে নিয়ে কুষ্টিয়া শহরে নিয়ে যায়। সেখানে একজনকে এসপি ও অপরজনকে পুলিশ লাইন স্কুলের শিক্ষক হিসাবে পরিচয় করিয়ে দেয়। তাঁরা তিনজনই জানায় লিখিত পরীক্ষার পর টাকা দিতে হবে। এরই মধ্যে পুলিশের চাকরি পেতে কোনভাবে অবৈধ টাকা লেলদেন হচ্ছে না। এ কথা প্রার্থীর আত্মীয়-স্বজনরা জানালে প্রার্থী ও তার পরিবার বুঝতে পারে এই তিনজন প্রতারক। তাঁরা ভেড়ামারা থানায় ১ নভেম্বর এসে বিষয়টি অবহিত করে। পুলিশ অভিযোগ দিতে বললে প্রার্থী ও অভিভাবক অভিযোগ দিতে অপারগতা প্রকাশ করেন।
পরে উর্ধতন কর্তৃপক্ষের আদেশে এসআই দিপন কুমার ঘোষ বাদী হয়ে আসামীদের বিরুদ্ধে গত শনিবার মামলা করেন। এবং ওই রাতেই কুষ্টিয়ার সুযোগ্য পুলিশ সুপার খাইরুল আলমের নির্দেশে ভেড়ামারা সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইয়াসির আরাফাত এর তত্ত্বাবধানে ওসি মজিবুর রহমানের প্রচেষ্টায় আসামী আবুল কাশেমকে আল্লারদর্গা একটি স্কুলের মাঠ থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।

ভেড়ামারা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মজিবুর রহমান বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আসামী আবুল কাশেম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন। তাকে আদালতে সোপর্দ করা হলে বিজ্ঞ আদালত তাকে জেল হাজতে প্রেরণ করেন।

আরও খবর:

Sponsered content