অপরাধ

কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে স্বামীর অত্যাচার সহ্য করতে না পেরে বিষপানে আত্মহত্যার চেষ্টা

  admin2 ৮ অক্টোবর ২০২২ , ২:০৭:০৫ 120

দৌলতপুর প্রতিনিধি

কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে যৌতুকের দাবিতে স্বামী তার স্ত্রীকে অমানবিক অত্যাচার করলে সহ্য করতে না পেরে বিষপানে আত্মহত্যার চেষ্টা করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় স্ত্রী পরিবার বাদী হয়ে স্বামী ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

পুলিশ ও পরিবার সূত্রে জানা যায়, উপজেলার প্রাগপুর ইউপির জামাল পুর গ্রামের দিনমজুর হাফিজুল ইসলাম এর মেয়ে কনা খাতুনের সাথে পার্শ্ববর্তী আদাবাড়িয়া ইউপির ধর্মদহ ঘাট পাড়া গ্রামের আজিজুল হকের ছেলে পলাশের সাথে আনুষ্ঠানিকতার মধ্য দিয়ে গত ১০ বছর আগে বিয়ে হয়।

তাদের পলি খাতুন নামে ৯ বছরের এক কন্যা সন্তান আছে। এরিমধ্যে বিগত কয়েক বছরে ধরে চতুর জামাই পলাশ শশুর হাফিজুলের নিকট থেকে বিভিন্ন ভাবে ২ লক্ষ ৫০ হাজার টাকা হাতিয়ে নেই।

অর্থ লোভী স্বামী পলাশ ও তার পরিবার সুকৌশলে স্ত্রী কনা কে তার পিতার নিকট থেকে আরো এক লাখ টাকা দাবি করলে স্ত্রী কনা গরিব পিতা দিতে পারবে না বলে অস্বীকার করলে গত ৪ অক্টোবর স্বামী পলাশ (২৮) আসিক (২২) নাহিদ (১৮) সহ মা মোমেনা খাতুন (৫২) সন্ধ্যাই স্ত্রী কনা কে লোহার রোড দিয়ে পিটিয়ে মারাত্মক জখম করে তালাক দেব হুমকি দিয়ে বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দেয়।

কনা অত্যাচার সহ্য করতে না পেরে রাগে ক্ষোভে গত ৫ অক্টোবর বিষ পানে আত্মহত্যার চেষ্টা করলে স্থানীয়রা ছুটে এসে তাকে দ্রুত দৌলতপুর হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্য রত চিকিৎসক কনাকে বিষ তুলে সুস্থ্য করে তোলে। পরে গত ৭ অক্টোবর কনার পিতা হাফিজুল জীবিকার তাগিদে ঢাকা নারায়নগঞ্জে অবস্থান করায় নানা মারফত আলী বাদী হয়ে দৌলতপুর থানায় পলাশ ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে মামলার জন্য লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

আরও খবর:

Sponsered content