সকল সংবাদ

কুষ্টিয়ার কুমারখালীর স্ত্রীর মর্যাদার দাবিতে রোজিনার অনশন

  admin2 ২৩ জানুয়ারি ২০২২ , ১১:৫৫:৫৬ 168

কুমারখালী প্রতিনিধি//

কুষ্টিয়া কুমারখালী উপজেলার চরসাদীপুর ইউনিয়নের উওর চরসাদীপুর গ্ৰামে মোজাম সর্দারের এর ছেলে সুমন হোসেন এর বাড়িতে ২২ শে জানুয়ারি সকাল থেকে স্ত্রীর
মর্যাদার দাবিতে অনশন করছে রোজিনা নামে এক কিশোরী।

জানা যায়, সুমন হোসেন (২৮) গত ৯ জানুয়ারি ১ লক্ষ টাকা দেলমহরে কুমিল্লা কোর্টে নোটারি পাবলিক কার্যালয় হইতে বিবাহ করে, একই এলাকার আক্কাস মোল্লার মেয়ে রোজিনা খাতুন (২৭) কে । পরবর্তীতে সুমন এবং সুমনের বাড়ির সবাই রোজিনা কে সুমনের স্ত্রী বলে অস্বীকার করে।

এই বিষয়ে রোজিনা খাতুন জানান, সুমনের কোথায় ২ ভরি স্বর্ণ নিয়ে যার মূল্য ১ লক্ষ ৬০ হাজার টাকা ও নগদ ১০ হাজার টাকা নিয়ে। কুমিল্লা গিয়ে ১ লক্ষ টাকা দেলমহরে সুমন আমাকে বিবাহ করে।

এরপর কুমিল্লা একটি স্থানে তিনদিন থাকি, পরবর্তীতে মাসুদ হোসেন পিতা-জহির মন্ডল আমাদের কে,ফোন করে বাড়ি আসতে বলে।

আমি ও সুমন ১৩ ই জানুয়ারি সকালে কুমিল্লা থেকে কুমারখালী কেশবপুর গ্রামে আসি। এই সময় আমার মামা রিপন মোল্লার বাড়ির সম্মুখে আসিলে আমাকে রাখিয়া আমার টাকা ও গহনার ব্যাগ নিয়ে সুমন বাড়িতে চলে যায়।

পরবর্তীতে ফোন করিয়া আমাকে যাইতে বলে তাদের বাড়িতে এবং আমার স্বর্ণের গহনা টাকা ফেরত দিবে বলে । আমি টাকা ও গহনার ব্যাগ ফেরত চাইলে আমাকে অকথ্যভাষায় গালিগালাজ করে মাসুদ।

আমি সুমনের বাড়িতে শনিবার আসলে সুমনের বাবা, মা আমাকে গলা ধাক্কা দিয়ে বাড়ি থেকে বের করে দেয়। আমি সুমনের স্ত্রী অধিকার চাই ।

এই বিষয়ে কুমারখালী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন ভুক্তোভোগী রোজিনা খাতুন।

কুমারখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কামরুজ্জামান তালুকদার জানান, এই বিষয়ে অভিযোগ এখনো হাতে পায়নি, অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আরও খবর:

Sponsered content